তথ্য চুরি যাওয়ার কথা স্বীকার করেছে ওয়ানপ্লাস

বেশ বিপদে পড়েছেন ওয়ান প্লাসের গ্রাহকেরা। ব্যবহারকারীর নাম, কনটাক্ট নম্বর, ঠিকানাসহ গুরুত্বপূর্ণ স্পর্শকাতর তথ্য ওয়ানপ্লাসের কাছ থেকে হাতিয়ে নিয়েছেন হ্যাকাররা। ঘটনাটি স্বীকার করেছে চীনা প্রতিষ্ঠানটি। তারা দাবি করেছে, গ্রাহকের ফরমাশ দেওয়া সংক্রান্ত কিছু তথ্য বেহাত হলেও পেমেন্ট তথ্য, পাসওয়ার্ড ও অ্যাকাউন্ট সুরক্ষিত রয়েছে।

২২ নভেম্বর থেকে হ্যাকড হওয়া অ্যাকাউন্টের তথ্য মেইলের মাধ্যমে জানাতে শুরু করেছে প্রতিষ্ঠানটি। যাঁদের কাছে মেইল আসেনি তাঁদের অ্যাকাউন্ট সুরক্ষিত।

ওয়ানপ্লাস হ্যাকড হওয়ার ঘটনায় কতজন গ্রাহক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন, সে তথ্য জানানো হয়নি। তাদের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘দুর্বৃত্তদের ঠেকাতে আমরা দ্রুত পদক্ষেপ নিয়েছি এবং নিরাপত্তা ব্যবস্থা মজবুত করেছি। এটা জনসমক্ষে আসার আগেই গ্রাহককে বিষয়টি মেইলে জানানো হয়েছে। ঘটনাটি তদন্তে আমরা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কাজ করছি।’

গত সপ্তাহে ওয়ানপ্লাস এই তথ্য চুরির ঘটনা টের পায়। ওয়ানপ্লাসের ওয়েবসাইটে আর কোনো নিরাপত্তা ত্রুটি আছে কি না, তা যাচাই-বাছাই করার কথা বলেছে প্রতিষ্ঠানটি। তাদের অনলাইন স্টোর বা ওয়ানপ্লাসের ওয়েবসাইটের নিরাপত্তাব্যবস্থা ভেদ করে চুরির ঘটনা ঘটিয়েছেন হ্যাকাররা।

এর আগে ২০১৮ সালের জানুয়ারিতে ওয়ানপ্লাস থেকে ৪০ হাজার গ্রাহকের তথ্য চুরির ঘটনা ঘটেছিল। সেবারও গ্রাহকদের ক্রেডিট কার্ডের তথ্য ছিনিয়ে নিয়েছিলেন হ্যাকাররা। তথ্যসূত্র: ফোর্বস

তথ্য চুরি যাওয়ার কথা স্বীকার করেছে ওয়ানপ্লাস
তথ্য চুরি যাওয়ার কথা স্বীকার করেছে ওয়ানপ্লাস 1

ওয়ানপ্লাস হ্যাকড হওয়ার ঘটনায় কতজন গ্রাহক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন, সে তথ্য জানানো হয়নি। তাদের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘দুর্বৃত্তদের ঠেকাতে আমরা দ্রুত পদক্ষেপ নিয়েছি এবং নিরাপত্তা ব্যবস্থা মজবুত করেছি। এটা জনসমক্ষে আসার আগেই গ্রাহককে বিষয়টি মেইলে জানানো হয়েছে। ঘটনাটি তদন্তে আমরা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কাজ করছি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*
*